জেলেদের বিমা সহায়তা নিশ্চিত করার সুপারিশ

জেলেদের বিমা সহায়তা নিশ্চিত করার সুপারিশ করেছে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি। কমিটির বৈঠকে মা-ইলিশ রক্ষা ও জাটকা নিধন বন্ধে জেলেদের মাছ ধরা থেকে বিরত রাখার জন্য সরকার কর্তৃক গৃহীত কার্যক্রম যথাযথভাবে পরিচালনার তাগিদ দেওয়া হয়েছে।

আজ রবিবার জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত ওই বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন কমিটির সভাপতি ধীরেন্দ্র দেবনাথ শম্ভু। বৈঠকে কমিটি সদস্য মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী মো. আশরাফ আলী খান খসরু, মো. শহিদুল ইসলাম (বকুল), মোসা. শামীমা আক্তার খানম এবং কানিজ ফাতেমা আহমেদ অংশগ্রহণ করেন।

কমিটি সূত্র জানায়, বৈঠকে আলোচনাকালে বাংলাদেশের অর্থনীতিতে মৎস্য সম্পদ ও জেলেদের অবদানের কথা তুলে ধরা হয়। কমিটির সদস্যরা বলেন, সমুদ্রে মাছ ধরতে গিয়ে অনেক জেলে নিখোঁজ হন, মারা যান ও ক্ষতিগ্রস্ত হন। আবার অনেককে জলদস্যুরা ধরে নিয়ে যাওয়ার ফলে ওই জেলে পরিবারের সদস্যরা অসহায় হয়ে পড়েন। ফলে জেলেদের জন্য বিমা সহায়তা নিশ্চিত করা জরুরি।

সংশ্লিষ্টরা জানান, মা-ইলিশ রক্ষা ও জাটকা নিধন বন্ধে জেলেদের খাদ্য সহায়তা দেওয়া হলেও তা আসলে তাদের উপকারে আসছে না। সরকারের এই কর্মসূচির আওতায় প্রতিটি পরিবারের ১৬০ কেজি করে চাল পাওয়ার কথা থাকলেও প্রকৃতপক্ষে তারা পাচ্ছেন মাত্র ৪০ থেকে ৬০ কেজি চাল। আর এই চাল একজন জেলে হাতে পায় মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা মৌসুমের অনেক পরে। এমতাবস্থায় কমিটির পক্ষ থেকে মাছের উৎপাদন বাড়াতে জেলেদের জন্য সরকার কর্তৃক গৃহীত কার্যক্রম যথাযথভাবে পরিচালনার বিষয়টি গুরুত্ব দেওয়ার সুপারিশ করা হয়েছে।