শেবাগের আইপিএল একাদশে নেই ধোনি-কোহলি

আইপিএলের সবচেয়ে সফল দুই দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স ও চেন্নাই সুপার কিংস। দুই দলই বিশ্বের সবচেয়ে জমকালো টুর্নামেন্টটির শিরোপা জিতেছে তিনবার করে। হায়দরাবাদে রোহিত শর্মার মুম্বাই এবং মহেন্দ্র সিং ধোনির চেন্নাই আজ মুখোমুখি হচ্ছে চার নম্বর শিরোপা জয়ের টার্গেটে। কোন দল সেই গৌরব অর্জন করবে তার ফয়সালা হবে রাতেই।

এ উত্তেজনার মাঝে নিজের পছন্দের আইপিএল একাদশ প্রকাশ্যে আনলেন বীরেন্দ্র শেবাগ। তার বাছাই করা দলে রয়েছে একাধিক চমক। বিস্ময়করভাবে তাতে নেই দুই ভারতীয় তারকা মহেন্দ্র সিং ধোনি ও বিরাট কোহলি।

বীরু দলের অধিনায়ক করেছেন ডেভিড ওয়ার্নারকে। এবার টুর্নামেন্টের মাঝপথে দেশে ফিরে গেছেন তিনি। উদ্দেশ্য- বিশ্বকাপ দলের প্রস্তুতি ক্যাম্পে যোগ দেয়া। তবে যতদিন সানরাইজার্স হায়দরাবাদের হয়ে খেলেছেন, ততদিন প্রতিপক্ষের জন্য ত্রাস ছিলেন।

দল বাছাইয়ের ক্ষেত্রে নিজের অবস্থানও পরিষ্কার করেছেন ভারতীয় সাবেক বিস্ফোরক ওপেনার। তিনি জানিয়েছেন ব্যক্তিবিশেষ নয়; খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্স আমলে নিয়ে দলটি তৈরি করা হয়েছে।

আসুন এবার নজর বুলিয়ে নেয়া যাক শেবাগের পছন্দের আইপিএল– ২০১৯ একাদশের দিকে। ওপেনিং জুটিতে তিনি রেখেছেন শিখর ধাওয়ান (দিল্লি ক্যাপিটালস) ও জনি বেয়ারস্টোকে (সানরাইজার্স হায়দরাবাদ)। তিনে আছেন কে এল রাহুল (কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব), চারে ডেভিড ওয়ার্নার (সানরাইজার্স হায়দরাবাদ)। ওপেনার হিসেবে একের পর এক ম্যাচে দুরন্ত ইনিংস খেলে দলকে লড়াকু সংগ্রহ এনে দিয়েছেন অজি ওপেনার। তাকে চার নম্বরে স্থান দিয়েছেন বীরেন্দ্র।

এ ক্ষেত্রে তার যুক্তি- আমি ওকে (ওয়ার্নার) ওপেনার ও মিডল অর্ডার দুই জায়গায় খেলতে দেখেছি। উভয় অর্ডারে ওর পারফরম্যান্স দারুণ। আমার দলের অধিনায়ক সে। কারণ ২০১৬ সালে তার অধিনায়কত্বে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল সানরাইজার্স। এছাড়া আন্দ্রে রাসেল, রাবাদা ও বুমরাহর মতো তারকা জায়গা পেয়েছেন তার দলে।

একনজরে শেবাগের সেরা আইপিএল একাদশ :

ডেভিড ওয়ার্নার (অধিনায়ক), শিখর ধাওয়ান, জনি বেয়ারস্টো, কেএল রাহুল, রিশভ প্যান্ট, আন্দ্রে রাসেল, হার্দিক পান্ডিয়া, শ্রেয়াস গোপাল, কাগিসো রাবাদা, রাহুল চাহার ও জাসপ্রিত বুমরাহ।